• বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৫:১২ অপরাহ্ন

শাহরাস্তি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মানের দাবিতে মানব বন্ধন

আপডেটঃ : বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৯

শাহরাস্তি প্রতিনিধিঃ

শাহরাস্তি উপজেলার প্রাণকেন্দ্র মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র প্রস্তাবিত স্থানে নির্মানের দাবিতে মানব বন্ধন ও স্মারক লিপি প্রদান করা হয়েছে।

১৬ অক্টোবর সকাল ১১টায় উপজেলা পরিষদ গেইটে শাহরাস্তি উপজেলার প্রাণকেন্দ্রে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র প্রস্তাবিত স্থানে নির্মানের দাবিতে মানব বন্ধন শেষে এলাকাবাসী উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিরিন আক্তারের নিকট স্মারক লিপি প্রদান করেন। ঐ সময় স্থানীয় এলাকাবাসীর বক্তব্যে বলেন উপজেলা প্রাণকেন্দ্রে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র স্থাপন হলে অনেক মুসলিম এর সমাগম হবে।

অন্যস্থানে মসজিদটি নির্মাণ করলে সেখানে মুসল্লিদের সমাগম একেবারেই কম হবে।এছাড়াও স্বারকরিপিতে উল্লেখ করা হল শাহরাস্তি উপজেলা/পৌরসভাধীন ৮নং ওয়ার্ডস্থ নিজমেহার গ্রামের উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন বিআরডিবি অফিসের বিপরীতে রাস্তার পশ্চিম পাশে প্রস্তাবিত স্থানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের জন্য কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্দেশ্যে স্মারকলিপি।

অশেষ শ্রদ্ধা ও সম্মান প্রদর্শন পূর্বক বিনীত নিবেদন, আমরা চাঁদপুর জেলার শাহরাস্তি উপজেলা/পৌরসভাধীন ৮নং ওয়ার্ডস্থ নিজমেহার গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা। শাহরাস্তি উপজেলা পরিষদের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত হাল ৬০ নং নিজমেহার মৌজার বি.এস ৬৪৬, ৬৬০, ৭০৬, ২৫৫৮, ২৫৫৯ নং খতিয়ান ও খারিজী ২৭৫৮ ও ২৮৯৪ নং খতিয়ানভুক্ত ৫০৭৬, ৫০৭৭ নং দাগের ০.৪৩০০ একর ভূমিতে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের জন্য স্থান নির্ধারণ করা হয়।

কিন্তু বি.এস ৬৬০ নং খতিয়ানের রেকর্ডীয় প্রজা শাহানারা বেগম তার মালিকানা ভূমি সরকার কর্তৃক অধিগ্রহণের জন্য অসহযোগিতা করায় উক্ত প্রস্তাবিত স্থানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ প্রায় অনিশ্চিত হয়ে পড়ে। কিন্তু দুঃখের বিষয় একটি কুচক্রী মহল প্রস্তাবিত স্থানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র যাতে নির্মাণ করা না হয়, তৎজন্যে উঠে-পড়ে লেগেছে। অতঃপর উক্ত নিজমেহার মৌজার ৫০৭৬ ও ৫০৭৭ দাগ সহ পার্শ্ববর্তী ভূমি মালিকদের সাথে আলোচনা ও পরিমাপের পর উপস্থিত এলাকাবাসী/সকলেই একমত পোষণ করে যে, বি.এস ৬৬০ নং খতিয়ানের রেকর্ডীয় প্রজা শাহানারা বেগম ভূমি অধিগ্রহণে বাধা দিলেও দক্ষিণ পার্শ্বের ভূমির মালিকগণ অধিগ্রহণের মাধ্যমে ভূমি দিতে প্রস্তুত রয়েছে। সরেজমিনে ভূমি পরিমাপ করে দেখা যায়, শাহানারা বেগম অধিগ্রহণের মাধ্যমে ভূমি দিতে রাজী না হওয়ায় শাহানারা বেগম এর বসত ঘর সহ ভূমি বাদ দিয়ে ৪৫ ফিট দক্ষিণে নেওয়া হলে উক্ত ভূমিতে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ করা সম্ভব হবে।

উল্লেখ্য যে, নতুন প্রস্তাবিত স্থানে যাদের বসতি ও স্থাপনা রয়েছে, তারা অধিগ্রহণের মাধ্যমে ভূমি দেওয়ার জন্য মৌখিকভাবে সম্মতি প্রকাশ করেছেন। এমতাবস্থায় দেশ রত্ন, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য তনয়া, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে উপজেলার প্রাণকেন্দ্রে ও দৃষ্টিনন্দন স্থানে যেখানে গণমানুষের সমাগম ঘটে, সেখানে মডেল মসজিদ নির্মাণ করা হলে উপজেলার সৌন্দর্য আরও বৃদ্ধি পাবে এবং এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসল্লীগণ মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র ব্যবহারের মাধ্যমে ইবাদত বন্দেগীতে আরও আগ্রহী হবে। সে সাথে উপজেলা ও কালীবাড়ীর মধ্যবর্তী স্থানে বিআরডিবি অফিসের বিপরীতে পাকা রাস্তার পশ্চিম পার্শ্বে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ করা হলে মুসল্লীর সমাগম অনেকাংশ বৃদ্ধি পাবে বলে এলাকাবাসী মনে করে।

অতএব, মহোদয় সমীপে আকুল আবেদন, চাঁদপুর জেলার শাহরাস্তি উপজেলা/পৌরসভাধীন ৮নং ওয়ার্ডস্থ নিজমেহার গ্রামের উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন বিআরডিবি অফিসের বিপরীতে রাস্তার পশ্চিম পাশে প্রস্তাবিত স্থানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আমরা স্থানীয় জনসাধারণ আপনার সু-দৃষ্টি কামনা করছি।


এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ

ফেসবুকে মানব খবর…