মানবখবর : হাজীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে টিকা গ্রহণের জন্য সিরিয়াল অনুযায়ী নিবন্ধনকৃতদের নাম ডাকছেন একজন স্টাফ।

মোহাম্মদ হাবীব উল্যাহ্
হাজীগঞ্জে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রতিরোধে গত ৫দিনে প্রায় ১৩’শ মানুষ ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ টিকা গ্রহণ করেছেন। গতকাল সোমবার পর্যন্ত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার উৎপাদনকৃত এই টিকার প্রথম ডোজ ৮৯৫৬জন এবং দ্বিতীয় ডোজ ১২৯৫জন গ্রহণ করেছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. এস.এম সোয়েব আহমে চিশতী।
এর আগে সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী গত ৮ এপ্রিল থেকে দ্বিতীয় ডোজ টিকা দেয়া শুরু হয়। যারা টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন, তাদের ২ মাস পূর্ণ হলে দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করতে পারবেন। এ ক্ষেত্রে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে ‘কোভিড-১৯ ভ্যাক্স’ নামক একটি আইডি থেকে টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণের তারিখ উল্লেখ করে প্রথম ডোজ গ্রহণকারী সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে ম্যাসেজ প্রদান করা হয়।
জানা গেছে, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে যারা টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন, তারা দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করার সময় টিকা কার্ড, টিকা কার্ডের ফটোকপি ও জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি সাথে নিয়ে যাবেন। এছাড়াও প্রথম ডোজ টিকা গ্রহণের পর যদি কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে থাকেন, তাহলে সুস্থতার ১ মাস পর দ্বিতীয় ডোজ টিকা নিতে পারবেন।
সরেজমিন পরিদর্শণ করে দেখা গেছে, টিকা নিতে আসা লোকজন সিরিয়াল অনুযায়ী প্রতি দশজন করে টিকাকক্ষে প্রবেশ করছেন এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে নিবন্ধনকৃতদের শরীরে টিকা পুশ করা হচ্ছে। একই কক্ষে একটি বেষ্টনি দিয়ে নারী ও পুরুষদের টিকা দিয়ে থাকেন হাসপাতালের প্রশিক্ষিত নার্সরা। টিকা গ্রহণের পর বিশ্রামের জন্য রাখা হয়েছে জনপ্রতি পৃথক চেয়ার। টিকা গ্রহণ করে কেউ বিশ্রাম নিচ্ছেন, আবার কেউ চলে যাচ্ছেন।
উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে, গতকাল (সোমবার) টিকার প্রথম ডোজ ৯ জনসহ এ পর্যন্ত মোট ৮৯৫৬ জন টিকা গ্রহণ করেছেন এবং ৪৩১ জনসহ এ পর্যন্ত ১২৯৫ জন টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করেছেন। প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নতুন ভবনের দ্বিতীয় তলায় ২১২নং কক্ষে নিবন্ধনকৃতদের এই টিকা সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির শরীরে পুশ করা হয়।
এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. এস.এম সোয়েব আহমে চিশতী জানান, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে যারা এখনো টিকা গ্রহণ করেন নি, তারা যেন দ্রুত নিবন্ধন সম্পন্ন করে টিকা গ্রহণ করেন। তিনি বলেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমন দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই আমাদের সবাইকে সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে এবং নিবন্ধন সম্পন্ন করে টিকা গ্রহণ করতে হবে।

Share This post