গাজী মমিন, ফরিদগঞ্জ:
ফরিদগগঞ্জে হিন্দু সম্প্রদায়ের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব শ্যামা
পূজা উদযাপিত হয়েছে। ৪ নভেম্বর বৃহস্পতিবার কালী পূজা নামে
পরিচিত এ উৎসবের সঙ্গে একই দিন উদযাপিত হয়েছে দীপাবলী উৎসবও।
এদিন রাতে মন্ডপে মন্ডপে শ্যামা দেবীর পূজা আয়োজন হয়ে থাকে।
পাশাপাশি প্রসাদ বিতরণ, আরতি, ধর্মীয় সঙ্গীত, সাংস্কৃতিক
অনুষ্ঠান, আলোকসজ্জা প্রভৃতি কর্মসূচি ছিল পূজার অনান্য অনুষঙ্গ।
দীপাবলী উদযাপনের জন্য মন্দির, মন্ডপ ও হিন্দুদের ঘরে ঘরে প্রদীপ প্রজ্জলন
করা হয়।
সারাদেশের ন্যায় ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে ফরিদগঞ্জ উপজেলার
বিভিন্ন ইউনিয়নে ৮টি মন্দিরে উদযাপিত হয়েছে হিন্দু সম্প্রদায়ের
বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব টি। পূজা কমিটির উদ্যোগে রাতে পূজা ছাড়াও
দীপাবলী অনুষ্ঠানে দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনা করে সহস্র প্রদীপ প্রজ্জ্বলন
করা হয়।
তারই ধারাবাহীকতায় উপজেলার ১৫ নং ইউনিয়নের পাড়া গাব্দেরগাঁও
কালীগাছতলা পল্লী যুবক সেবক সংঘ’র আয়োজনে সার্বজনীন শ্রী
শ্রী শ্যামকালী পূজা ও মহোৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে।
পল্লী যুবক সেবক সংঘের সভাপতি বাপ্পী দেবনাৎ ও সাধারণ সম্পাদক
শিবু মজুমদারের সঞ্চালনায় আয়োজিত অনুষ্ঠান পরিদর্শন করেন,
ফরিদগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শহীদ হোসেন, ১৫ নং
ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. ফারুকুল ইসলাম ফারুকী, ফরিদগঞ্জ
প্রেসক্লাবের সভাপতি মো. কামরুজ্জামান, সাংবাদিক নারায়ন
রবিদাস, ১৫ নং ইউনিয়নের পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি নন্দলাল,
স্থানীয় ইউপি সদস্য লিঠন প্রমুখ

Share This post