জিসান আহমেদ নান্নু,কচুয়া ॥
কচুয়া উপজেলার শাসনপাড়া গ্রামে আইসক্রীম বিক্রেতা রুহুল আমিনের ছেলে অটোচালক মাসুদ (১৮) এর রহস্যজনক লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার সন্ধ্যায় পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে সোমবার ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুরে মর্গে প্রেরন করেছেন। নিহত মাসুদের বাবা রুহুল আমিন ও মা সুমি বেগম বলেন, একই গ্রামের পাশ^বর্তী বাড়ির নবীর হোসেনের ছেলে শাওন এর সাথে পাওনা টাকা নিয়ে কয়েক দিন আগে মাসুদকে মারধর করে। ঘটনার দিন সকালে শাওন, মাসুদ কে নিজ বাড়ি থেকে ডেকে নেয়। পরে বিকালে শাসনপাড়া রাস্তার পূর্ব পাশে রেনু পাটওয়ারীর পুকুরে তার লাশ স্থানীয়রা দেখে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে কচুয়া থানার এসআই মো. আরিফ হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সুরাতাল রিপোর্ট তৈরি করে লাশ মর্গে প্রেরন করে। নিহতের ভাই শাহীন হোসেন,হাবিব,মহসিন ও বোন মরিয়ম সহ এলাকাবাসী বিষয়টি তদন্তপূর্বক প্রকৃত রহস্য উদঘাটনের দাবি জানিয়েছেন। স্থানীয়রা জানান, মাসুদ এলাকায় বিভিন্ন গাছ-গাছালি কর্তন ও অটো রিক্সা চালিয়ে তার অসহায় পরিবারের হাল ধরেছেন। মাসুদকে হত্যা করা হয়েছে নাকি অন্যকিছু। এ মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য উদঘাটন করে ন্যায় বিচার দাবি জানিয়েছেন তারা। এদিকে অভিযুক্ত যুবক শাওনের মা মরিয়ম বেগম ছেলে শাওনের কাছে পাওনা টাকা ও ঝগড়ার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, শুনেছি রবিবার একই গ্রামের প্রবাসী আলমগীর হোসেনের স্ত্রী তুলামতি বেগমের গরু গোসল করাতে গিয়ে রেনু পাটওয়ারীর পুকুরের পাড়ে পানিতে পড়ে মাসুদ মৃগিরোগে মারা যায়। অপর দিকে নিহত মাসুদের বাবা রুহুল আমিন মোল্লা বাদী হয়ে কচুয়া থানায় একজনের নাম উল্লেখ ও ৩/৪জনকে অজ্ঞাত আসামী করে একটি এজাহার দায়ের করেছেন। যার নং- ০২ (১০),২০২১ইং। কচুয়া থানার ওসি মো. মহিউদ্দিন বলেন, মৃত্যুর বিষয়টি রহস্যজনক। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর মর্গে প্রেরন করা হয়েছে এবং ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

Share This post